বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই, ২০২৪, ৩ শ্রাবণ, ১৪৩১, ১১ মহর্‌রম, ১৪৪৬

‘অর্থপাচারকারী-অপকর্মকারীরা সাবধান, শেখ হাসিনা কঠোর হচ্ছেন’

 

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহণ ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, অর্থপাচারকারী, ছাত্রলীগ পরিচয়ের ‘দুর্বৃত্তরা’ সাবধান। শেখ হাসিনা কঠোর হচ্ছেন। কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না।

শনিবার বিকালে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের আয়োজিত শান্তি সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ছাত্রলীগের পরিচয় ব্যবহার করে যেসব অপকর্ম হচ্ছে এগুলো দুর্বৃত্তের কাজ। এই দুর্বৃত্তরা দলের নাম ব্যবহার করে। এদের পরিচয় এরা দুর্বৃত্ত। এদের আওয়ামী লীগের কোনো সংগঠনে থাকার অধিকার নেই। অপকর্মকারীদের শেখ হাসিনা ছাড় দেন না। প্রমাণ আছে না? বিশ্বজিৎ হত্যাকারীরা ছাত্রলীগ পরিচয়ে রক্ষা পেয়েছে? বুয়েটের আবরার হত্যার সঙ্গে যারা জড়িত ছাত্রলীগ পরিচয়ে তারা ছাড় পেয়েছে? এদের কি বিচার হয়নি?

তিনি বলেন, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে আমি বলেছি, এদের দল থেকে বহিষ্কার করলে হবে না, এদেরকে আইনের আওতায় আনুন। এই গুটিকয়েক দুর্বৃত্তের জন্য আওয়ামী লীগের বদনাম হতে পারে না। যারা অপকর্ম করবে তাদের বিরুদ্ধেও খেলা হবে।

সেতুমন্ত্রী বলেন, আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা প্রস্তুত থাকুন। অপকর্মকারীদের দলে স্থান দেবেন না। এদেরকে এনে মিছিল বড় করার দরকার নাই। শুক্রবার সন্ধ্যায় এ মিটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। এত অল্প সময়ে বঙ্গবন্ধু এভিনিউ কানায় কানায় পূর্ণ হয়ে গেছে। এর দ্বারা এটাই বোঝা যায় যে, মানুষ প্রস্তুত আছে, ডাক দিলেই তারা রাজপথে নামবে।

তিনি বলেন, আজকের এই শান্তি সমাবেশে আমরা আবারো একটা কথা পরিষ্কারভাবে জানাতে চাই, আমরা ক্ষমতায় আছি। যত দিন জনগণ আমাদের ক্ষমতায় রাখবে, তত দিন আমরা ক্ষমতায় থাকব, ইনশাআল্লাহ।

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, আমরা ক্ষমতায় আছি, জনগণের জানমাল রক্ষায় আমরা পাহারাদার। জনস্বার্থে আমরা পাহারাদার। সিরাজগঞ্জে ১৮টি মোটরসাইকেল পুড়িয়ে দিয়েছে, কখন এরা আবার আগুন সন্ত্রাস নিয়ে মাঠে নামে, এটার জন্য আমাদের রাস্তায় থাকতে হবে। আপনি আগুন নিয়ে আসবেন, পুড়িয়ে দেবেন, আমরা দাঁড়িয়ে দাঁড়িয়ে দৃশ্য দেখব? এই আগুন সন্ত্রাসীদের আমরা ক্ষমতায় যেতে দিতে পারি না।

ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি নুরুল আমিন রুহুলের সভাপতিত্বে শান্তি সমাবেশে আরও বক্তব্য দেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া, অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুবউল আলম হানিফ, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হুমায়ূন কবির, সহ-সভাপতি ডা. দিলীপ রায়, সরফুদ্দিন আহমেদ সেন্টু, হেদায়েতুল ইসলাম স্বপন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মহিউদ্দিন মহি, সাংগঠনিক সম্পাদক গোলাম আফরাফ তালুকদার, আকতার হোসেন, গোলাম সারোয়ার কবির, দপ্তর সম্পাদক রিয়াজ উদ্দিন রিয়াজ প্রমুখ।