বুধবার, ২৯ মে, ২০২৪, ১৫ জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১, ২০ জিলকদ, ১৪৪৫

গোসাইরহাটে খেলতে গিয়ে ডোবার পানিতে ডুবে দুই বোনের মৃত্যু

শরীয়তপুরে খেলতে গিয়ে ডোবার পানিতে ডুবে দুই কন্যা শিশুর মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে। মঙ্গলবার (৮-আগস্ট) সকাল ৭টার দিকে গোসাইরহাট উপজেলার নলমুড়ি ইউনিয়ন এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।
নিহত দুই শিশু হলো- ঐ ইউনিয়নের পাঁচকাঠি এলাকার বারেক চৌধুরীর মেয়ে হাসিবা (৭) ছোট মেয়ে হামিদা (৩)। শিশু দুটি সম্পর্কে আপন দুইবোন।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, সকাল ৭টার দিকে শিশু দুটি বাড়ির পাশে খেলতে যায়। শিশুদের দেখতে না পেয়ে খুঁজতে শুরু করেন তাদের পরিবারের লোকজন খুঁজাখুজি করতে থাকে একপর্যায় বাড়ির পাশে ডোবার পানিতে নামলে পা পিচলে দুজনই ঘটনাস্থলে পানিতে তলিয়ে যা। এরপরে তার ছোট মেয়ে হামিদাকে অচেতন হয়ে ভাসমান অবস্থায় পাওয়া যায় এবং বড় মেয়ে হাসিবা পানিতে তলিয়ে যায়। তারা আরো বলেন, এরপরে আমরা উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাই। পরে তাদের গোসাইরহাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্মরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করে।
শিশু দুইটির বাবা বারেক চৌধুরী বলেন, সকালে আমার দুই মেয়ে বাড়ির পাশে খেলা করতে গেলে সকালের খাবার খওয়ার জন্য ডাকাডাকি করি তাদার সারা না পেয়ে বাড়ির পাশে একটি ডোবায় ছোট মেয়েকে ভাসমান অবস্থায় দেখি তখন বড় মেয়েকে না দেখে খুঁজতে পানির নিচে রয়েছে সেখান থেকে দুজনকে অচেতন অবস্থায় দেখে আমি চিৎকার করতে থাকি এসময় আশপাশের তারা উদ্ধার করে গোসাইরহাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়।
ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে নলমুড়ি ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের মেম্বার মনির সরদার বলেন, আজ সকালে শিশু দুটি আপন দুইবোন খেলাড়ছলে অন্য বাড়ির সামনে ডোবা থাকায় পা পিছলে পড়ে যায় দুজনই মৃত্যু বরন করে।
শিশু দুটির মৃত্যুর সত্যতা নিশ্চিত করে গোসাইরহাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরী বিভাগের ডা. মো. কামাল হোসেন বলেন,আজ সকালে পানিতে ডুবে যাওয়া দুটি কন্যা শিশু হাসপাতালে নিয়ে আসলে আমরা ইসিজি সহ অন্যান্য পরীক্ষা নিরিক্ষা করে দেখা যায় শিশু দুটি আগেই মারা গেছেন এরপরে মৃত দেহ পরিবারের কাছে দেয়া হয়েছে।
গোসাইরহাট থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো.আসলাম সিকদার বলেন,ডোবার পানিতে তলিয়ে দুই কন্যাশিশুর মৃত্যু হয়েছে। এ বিষয়ে একটি অপমৃত্যুর মামলা করা হবে।