শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ১১ ফাল্গুন, ১৪৩০, ১৩ শাবান, ১৪৪৫

নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘন: উপমন্ত্রী শামীমকে শোকজ

 

নির্বাচনী আচরণ বিধিমালা লঙ্ঘনের অভিযোগে শরীয়তপুর-২ (নড়িয়া-সখিপুর) আসনে আওয়ামী লীগের দলীয় নৌকার প্রার্থী ও বর্তমান সংসদ সদস্য উপমন্ত্রী একেএম এনামুল হক শামীমকে শোকজ করা হয়েছে।

ওই নির্বাচনী এলাকার নির্বাচন অনুসন্ধান কমিটির চেয়ারম্যান ও শরীয়তপুরের সিনিয়র সহকারী জজ মো. আরিফুল ইসলাম গত ১৩ ডিসেম্বর এ বিষয়ে লিখিত ব্যাখ্যা চেয়ে তার বিরুদ্ধে নোটিশ জারি করেন। ওই আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী খালেদ শওকত আলীর অভিযোগের প্রেক্ষিতে তাকে এ নোটিশ জারি করা হয়। নোটিশে আগামী ১৮ ডিসেম্বরের মধ্যে লিখিত ব্যাখ্যা দিতে বলা হয়েছে।

নোটিশে উপমন্ত্রী একেএম এনামুল হক শামীমের উদ্দেশ্যে বলা হয়, আপনাকে লিখিত ব্যাখ্যার নির্দেশ প্রদান করা যাচ্ছে যে, আপনি আসন্ন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের শরীয়তপুর-০২ আসনে নড়িয়া উপজেলা, সখিপুর থানা উপজেলা ভেদরগঞ্জ নির্বাচনী এলাকার ২২২ এর একজন সংসদ সদস্য পদপ্রার্থী। বিগত ০৭-১২-২০২৩ খ্রিঃ সকালবেলা আপনি নড়িয়া উপজেলার রাজনগর ইউনিয়নের হাঁসের কান্দি ৬নং ওয়ার্ডে নৌকার প্রার্থী হিসাবে ৩০০-৪০০ লোকবল নিয়ে নির্বাচনী জনসভা করেছেন। ভোট গ্রহণের নির্ধারিত দিনের তিন সপ্তাহ পূর্বে নির্বাচনী প্রচারনা করেছেন যা নির্বাচন কমিশন কর্তৃক প্রজ্ঞাপনে জারীকৃত নির্বাচন আচরণ বিধিমালা, ২০০৮ এর ১২ অনুচ্ছেদের সুস্পষ্ট লঙ্ঘন মর্মে পরিলক্ষিত হচ্ছে।

এমতাবস্থায় আপনি কেন নির্বাচন আচরণ বিধিমালা লঙ্ঘন করেছেন তৎমর্মে ১৮-১২-২০২৩ খ্রিঃ তারিখ বিকাল ৪:০০ ঘটিকার মধ্যে আপনাকে নিম্নস্বাক্ষরকারীর কার্যালয়ে স্ব-শরীরে বা আপনার প্রতিনিধির মাধ্যমে হাজির হয়ে লিখিত ব্যাখ্যা প্রদান করার জন্য নির্দেশ দেয়া হলো।

শোকজ নোটিশের সাথে স্বতন্ত্র প্রার্থী খালেদ শওকত আলী কর্তৃক লিখিথ অভিযোগপত্রে ছায়ালিপি ও নির্বাচনী প্রচারনার ধারনকৃত আলোকচিত্রের ফটোকপি সংযুক্ত করা হয়।

জ্ঞাতার্থে বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশনের সচিব, উপ-সচিব (আইন) ও শরীয়তপুর জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা বরাবর শোকজের অনুলিপি প্রেরণ করা হয়েছে।