শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ১০ ফাল্গুন, ১৪৩০, ১২ শাবান, ১৪৪৫

শরীয়তপুরে বাসস্ট্যান্ড নিয়ে আওয়ামী লীগের দুপক্ষের সংঘর্ষ: ৪২ জনের নামে মামলা

 

নড়িয়ায় বাসষ্ট্যান্ড দখলকে কেন্দ্র করে আওয়ামীলীগের দু”গ্রুপের সংঘর্ষের ঘটনায়, ৪২ জনকে আসামী করে পুলিশের মামলা

শরীয়তপুরের নড়িয়ায় বাসস্ট্যান্ডের দখল নিয়ে আওয়ামী লীগের দুপক্ষের সংঘর্ষের ঘটনায় ৪২ জনের নামে মামলা করেছে পুলিশ।

রোববার মামলাটি করা হয় বলে নড়িয়া থানার এসআই মালমগীর হোসেন জানান।

স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতা ও সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান শাহ আলম চৌকিদার এবং নড়িয়া সরকারি কলেজের সাবেক ভিপি মামুন মোস্তফা সিকদার তাদের লোকজন নিয়ে গত কয়েকদিন আগে উপজেলার ডা. গোলাম মাওলা সেতুর পশ্চিম পাড়ের নড়িয়া বাসস্ট্যান্ড এলাকার বিভিন্ন কাউন্টার আংশিক দখল করে নেন।

শনিবার দুপুরে তারা ফের শতাধিক লোক ও দেশীয় অস্ত্রসহ হামলা চালান ও হাত বোমার বিস্ফোরণ ঘটিয়ে কাউন্টারগুলো পুরাপুরি দখলে নেওয়ার চেষ্টা করেন।

পক্ষটির বিরুদ্ধে মোক্তারের চর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি ও ৮ নম্বর ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য জাবেদ শেখের ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান ভাঙচুরের অভিযোগ ওঠে।

স্থানীয়দের বরাত দিয়ে পুলিশ জানায়, খবর পেয়ে জাবেদ শেখ ও তার লোকজন দেশীয় অস্ত্র নিয়ে পাল্টা হামলা চালান।

এতে পাঁচ পুলিশ সদস্যসহ উভয় পক্ষের অন্তত ১৫ জন আহত হন।

নড়িয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, দুপক্ষের সংঘর্ষে আমাদের থানার এসআই মালমগীর হোসেনসহ পাঁচ পুলিশ সদস্য আহত হন। এ ঘটনায় এসআই মালমগীর বাদী হয়ে ৪২ জনকে আসামি করে নড়িয়া থানায় মামলা করেন।

তবে আওয়ামী লীগের কোনো পক্ষই এখনো মামলা করেনি।

এদিকে, ঘটনার দিন আটক নড়িয়া উপজেলার মোক্তারের চর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শাহ আলম চৌকিদার, নড়িয়া সরকারি কলেজের সাবেক ভিপি মামুন মোস্তফা সিকাদর, যুবলীগ কর্মী মাহবুবুর আলমকে রোববার আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয় বলে ওসি জানান।